Skip to main content

কিভাবে Origin সাইটে ডাউনলোড গতি বৃদ্ধি করবেন

 বর্তমানে প্রযুক্তির এই উৎকর্ষ সময়ে আমাদের প্রত্যেকের ঘরে কমবেশি ল্যাপটপ বা কম্পিউটার থাকে। আমরা সকলেই কমবেশি আমাদের সকল কাজ প্রায় কম্পিউটার বা ল্যাপটপ ব্যবহার করার মাধ্যমে সম্পাদন করে থাকি। 


বর্তমান সময়ে আমরা উঠতি বয়সের কিশোর-কিশোরিরা কম্পিউটার বা ল্যাপটপের মাধ্যমে বিনোদনের জন্য গেম করি না, এমন না পাওয়া অস্বাভাবিক। আমরা সকলেই ভার্চুয়াল গেম পছন্দ করে থাকি এবং আমরা সকলেই কম্পিউটার বা ল্যাপটপের মাধ্যমে ভার্চুয়াল গেম করে থাকি।

আমরা যারা কম্পিউটার বা ল্যাপটপের মাধ্যমে ভার্চুয়াল গেম করে থাকি, আমরা সকলেই ভার্চুয়াল  Origin প্লাটফর্মটির নাম জেনে থাকি এবং আমরা সকলেই এই সাইটটি সম্পর্কে পরিচিত। Origin সাইটটি মূলত উঠতি বয়সের কিশোর-কিশোরি যারা ভার্চুয়াল গেম পছন্দ করে, তাদের জন্য বেশ প্রিয় একটি সাইট। এই সাইটে আপনি সমস্ত রকমের ভিডিও গেম সর্বশেষ আপডেট সহকারে পাবেন এবং তা নির্ধারিত মূল্যে ক্রয় করতে পারবেন। তাছাড়া Origin সাইটে আপনি সহজেই একে অপরের সাথে মাল্টিপল গেম করতে পারবেন।

সাম্প্রতিক সময়ে Origin সাইট নিয়ে কিছু আপত্তি উঠেছে যে এই Origin সাইট থেকে গেমাররা গেম ডাউনলোড করার সময় খুব কম স্পিড পেয়ে থাকে এবং এই সমস্যাটি Origin সাইটের গেমারদের জন্য খুব হতাশার কারণ হয়ে উঠেছে। 

সুতরাং, যদি আপনি Origin সাইটের ডাউনলোড  সমস্যার ভুক্তভোগী হোন, তাহলে অবশ্যই আপনি এই Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যার সমাধান চেয়ে থাকবেন। তাই আমাদের আজকের আর্টিকেলটি আপনার জন্য। আজকের আর্টিকেলে আমরা আপনাকে Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যার সমাধান সম্পর্কে জানাবো।

Configuration File তৈরির মাধ্যমে Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যার সমাধান করুন

যদি আপনিও Origin সাইটের নিয়মিত একজন গেমার হয়ে থাকেন এবং আপনিও যদি Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যার সমাধান নিয়ে চিন্তিত থাকেন, তাহলে আজকের আর্টিকেলটি মনযোগ সহকারে পড়ুন। আজকের আর্টিকেলে আমরা একটি কনফিগারেশন ফাইল তৈরির মাধ্যমে Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যার সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো।

  • আমরা যারা গেমিং করার জন্য Origin সাইট ব্যবহার করে থাকি, আমরা সকলেই জানি যে এই সাইটের সফটওয়্যার Windows এবং MacOS অপারেটিং সিস্টেমের জন্য প্রযোজ্য। সুতরাং, যদি আপনি আপনার কম্পিউটার বা ম্যাকবুকে Origin সফটওয়্যারটি ইনস্টল করে থাকেন, তাহলে তো হলোই। আর যদি ইনস্টল করা না থাকে, তাহলে এই লিংক হতে সফটওয়্যারটি ডাউনলোড করে ইনস্টল করে নিতে পারেন।
  • তারপর Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যার সমাধানের জন্য আপনার কম্পিউটারে একটি নোটপ্যাড চালু করুন এবং তাতে নিম্মে উল্লেখিত কমান্ডগুলো টাইপ করুন। 
  1. [connection]
  2. EnvironmentName=production
  3. [Feature] CdnOverride=akamai
  • তারপর File > Save As অপশনে যান। 

  • তারপর File Name অপশনে EACore.ini লিখুন এবং Save as type অপশনে All Files সিলেক্ট করে দিন। তারপর এই ফাইলটি আপনার ডেকস্টপ স্ক্রিনে সেভ করে দিন।
  • তারপর আপনি আপনার ডেকস্টপ স্ক্রিনে আপনার সেভ করা নোটপ্যাডটি একটি কনফিগারেশন ফাইল হিসেবে দেখতে পাবেন। ফাইলটি অপেন করুন। তখন আপনি Use Configuration File On Desktop নামে একটি Pop-Up মেসেজ দেখতে পাবেন। সেখান হতে Yes অপশনে ক্লিক করুন।
  • তারপর আপনাকে Origin সাইটের Sign In পেজে নিয়ে যাওয়া হবে। উপরোক্ত সমস্ত কাজ যদি আপনি সঠিকভাবে করে থাকেন, তাহলে উক্ত পেজের শুরুতে আপনি  R & D Mode লেখাটি দেখতে পাবেন। 
  • তারপর আপনি আপনার একাউন্টে লগ ইন করুন বা Create an Account অপশন থেকে নতুন একাউন্ট খুলে নিন।
  • অতঃপর উপভোগ করুন Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যা ব্যতীত গেম ডাউনলোড স্পিড। পরীক্ষামূলকভাবে চাইলে আপনি কোন গেমস ডাউনলোড করে দেখতে পারেন।

নোটঃ
  1. Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যার সমাধানের জন্য আর্টিকেলে উল্লেখ করা সমস্ত পদ্ধতি উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেমে দেখানো হলেও, ম্যাকবুক ব্যবহারকারীদের জন্য কনফিগারেশন পদ্ধতি একইরকম। সুতরাং, Origin সাইট থেকে আপনার MacOS এর জন্য সফটওয়্যার ডাউনলোড করে ইনস্টল করুন এবং একই পদ্ধতিতে কনফিগার করে Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যার সমাধান করুন।
  2. আর্টিকেলে উল্লেখ করা উপরোক্ত পদ্ধতির নাম মূলত R & D Mode এবং এই Origin সফটওয়্যারে এই মুড ব্যবহার করে ডাউনলোড স্পিড বৃদ্ধি করতে চাইলে আপনাকে অবশ্যই আপনার নোটপ্যাডে উপরোক্ত কমান্ডগুলো সঠিকভাবে টাইপ করতে হবে।

Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যার সমাধান নিয়ে আমাদের লেখা আজকের আর্টিকেল আপনার কেমন লেগেছে, তা জানাতে ভুলবেন না। আর্টিকেলটি আপনার উপকারে এসে থাকলে অবশ্যই শেয়ার করুন। টেকনোলজি সম্পর্কিত নানাবিধ আর্টিকেল পড়তে আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করুন। Origin সাইটের ডাউনলোড সমস্যার সমাধান নিয়ে আপনার কোন ট্রিকস জানা থাকলে মন্তব্যের মাধ্যমে তা আমাদের সঙ্গে শেয়ার করতে পারেন। 











Comments

Popular posts from this blog

কিভাবে এন্ড্রোয়েড স্মার্টফোনে নটিফিকেশন লুকাবেন

  বর্তমান সময়ে এন্ড্রোয়েড স্মার্টফোন আমাদের সকলের জন্য একটি প্রয়োজনীয় বস্তু হয়ে দাড়িয়েছে। আমাদের সার্বিকক যোগাযোগের জন্য সর্বপ্রথম আমরা এই এন্ড্রোয়েড স্মার্টফোনকে বেছে নিই। আমরা প্রতিনিয়ত আমাদের সকল কাজের জন্য এন্ড্রোয়েড স্মার্টফোনকে প্রাথমিক যোগাযোগ মাধ্যম হিসেবে বেছে নিয়েছি।  Google প্রায়ই কিছুদিন পর পর এন্ড্রোয়েড অপারেটিং সিস্টেমে নতুন কিছু আপডেট নিয়ে আসে। Google এবার Android Oreo ভার্সনে ইউজারদের জন্য নতুন একটি আপডেট এনেছে আর তা হলো, Android Background Notification নামে একটি ফিচার। এই Android Background Notification ফিচারটির মাধ্যমে আপনি আপনার Android Oreo ভার্সনে আপনার ব্যাকগ্রাউন্ডে রানিং থাকা সমস্ত এপস সম্পর্কে নোটিফিকেশন পাবেন এবং কোন কোন এপস আপনার ব্যাটারির ক্ষতি করছে, তা সম্পর্কে জানতে পারবেন। কিন্তু, এই Android Background Notification ফিচারটি ইউজারদের জন্য উপকারী হলেও, অনেক ইউজার এই Android Background Notification ফিচারটি ব্যবহার করতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করে না। কেননা, একটু পর পর নোটিফিকেশন আসতে থাকা সকলের জন্যই বিরক্তির কারণ হয়ে দাড়ায়।  সুতরাং, যদি আপনি Android Oreo ভার্সনের এন

কিভাবে এন্ড্রোয়েড ফোনে একাধিক একাউন্ট করবেন

  আমাদের প্রাত্যাহিক জীবনে একটি এন্ড্রোয়েড স্মার্টফোন কতটুকু জরুরী, তা ভাষায় বুজিয়ে বলার আক্ষেপ রাখে না। একটি এন্ড্রোয়েড স্মার্টফোন আমাদের জীবনের সকল কাজ খুব সহজেই সমাধান করে দেয়। আমরা সকলেই আজকাল নিজেদের সার্বিক প্রয়োজনে এই এন্ড্রোয়েড স্মার্টফোন ব্যবহার করে থাকি।  বর্তমানে এন্ড্রোয়েড স্মার্টফোনের একটি বিশেষ ফিচার হলো, Android Multiple User Account Feature। আমরা আমাদের নিজস্ব ব্যবহার করা এন্ড্রোয়েড স্মার্টফোন বিভিন্ন প্রয়োজনে অন্যদের সঙ্গে শেয়ার করে থাকি। এক্ষেত্রে অবশ্যই আমরা আমাদের স্মার্টফোনের ব্যপারে তেমন একটি সিকিউরিটি নিশ্চিত করতে পারি না।  তাই, Google ইউজারদের সিকিউরিটি নিশ্চিত করতে এবার নিয়ে এলো Android Multiple User Account Feature নামে একটি ফিচার। এই Android Multiple User Account Feature ব্যবহারের মাধ্যমে আপনি সহজেই আপনার স্মার্টফোনে ইউজার একাউন্ট পরিবর্তন করে আপনার স্মার্টফোনটি অন্যদের সঙ্গে শেয়ার করতে পারবেন। এতে অন্যান্য কেউ আপনার পার্সোনাল ইনফরমেশনে সহজেই এক্সেস নিতে পারবে না এবং আপনাকে আপনার সিকিউরিটি নিয়ে চিন্তিত হতে হবে না। কিভাবে Android Multiple User Account Feature

উইন্ডোজ ১০ অটোমেটিক আপডেট বন্ধ করার উপায়

  উইন্ডোজ ১০ বর্তমান সময়ে বহুল ব্যবহৃত একটি গ্রাফিক্যাল অপারেটিং সিস্টেম। এই উইন্ডোজ ১০  অপারেটিং সিস্টেমটি মাইক্রোসফট কোম্পানির অন্যান্য অপারেটিং সিস্টেমের তুলনায় বহুল ব্যবহৃত হয়েছে এবং বহুল প্রসিদ্ধও বটে। আমরা যারা নতুন কম্পিউটার বা ল্যাপটপ ক্রয় করি, আমরা সকলেই মূলত এই উইন্ডোজ ১০ এর বিভিন্ন ভার্সন ব্যবহারের মাধ্যমে কম্পিউটার ব্যবহার শুরু করে থাকি। উইন্ডোজ ১০ এর অন্যান্য জনপ্রিয় ফিচারগুলো থেকে একটি ফিচার হচ্ছে, উইন্ডোজ ১০ অটোমেটিক আপডেট হওয়া। এই ফিচারটির মাধ্যমে মাইক্রোসফট থেকে রিলিজ করা সমস্ত আপডেট ইন্টারনেট কানেকশনের মাধ্যমে প্রতিটি কম্পিউটারে অটোমেটিক আপডেট হয়ে থাকে।  যদিও এই ফিচারটি বহুল জনপ্রিয়, কিন্তু অনেকের নিকট এই ফিচারটি একটি বিরক্তিকর কারন হয়ে উঠে। কিন্তু, উইন্ডোজ ১০ ভার্সনে উইন্ডোজ অটোমেটিক আপডেট হওয়ার বিষয়টি আপনার নিয়ন্ত্রণে নয়। কেননা, কোন সাধারণ মানুষ এই অটোমেটিক আপডেট ফিচারটি বন্ধ করতে পারেনা। সুতরাং, আপনি যদি আপনার ব্যবহার করা কম্পিউটারে উইন্ডোজ ১০ অটোমেটিক আপডেট বন্ধ করার উপায় জানতে চান, তাহলে আজকের আর্টিকেল আপনার জন্য। আজকের আর্টিকেলে আমরা আপনাকে উইন্ডোজ ১০ অটোমেটিক আ